সোমবার-২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০- সময়: সন্ধ্যা ৭:৩৭
গুরুদাসপুরে এক বৃদ্ধা খুন বিরামপুরে সর্বোচ্চ নম্বরপ্রাপ্ত কাটলা হলি চাইল্ড স্কুল বিরামপুরে মুজিব বর্ষ উপলক্ষ্যে দিনব্যাপী অনুষ্ঠান দিদউফ বিরামপু‌রে দুস্থ শীতার্ত‌দের মা‌ঝে শীতবস্ত্র বিতরন বিরামপুরে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস ও জন্মশতবার্ষিকীর ক্ষণ গণনার সূচনা বিরামপুরে ১২ হাজার শিশুকে ভিটামিন এ প্লাস খাওয়ানো হয়েছে দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে সীতার কুটুরি গোচারণ ভূমিতে পরিণত কালো জাম ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে ঐতিহ্যবাহী খেজুর রস, কালের পরিক্রমায় প্রতি বছরই হাজির হয় শীত দিনাজপুর হতদরিদ্র শীতার্থ মানুষের পাশে এগিয়ে এসেছে ডিএফএর

তথ্য প্রযুক্তি newsdiarybd.com:

ডিজিটাল সেবা এখন জনগণের দোরগোড়ায়

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি-বর্তমান বিশ্ব্য তথ্য প্রযুক্তি নির্ভর এক আধুনিক বিশ্ব্যে পরিণত হয়েছে। আমাদের চারপাশে যা আছে প্রত্যেক জিনিসের মধ্যে কোন না কোন ভাবে প্রযুক্তির ছোঁয়া লেগেছে।

তথ্য প্রযুক্তির এই যুগে উন্নত দেশগুলোর মধ্যে বর্তমানে অমাদের দেশেও সমাজ ও রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থায় আমুল পরিবর্তন এনেছে। এই তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহারের সঙ্গে বদলে যাচ্ছে মানুষের চিন্তা, চাহিদা, অভ্যাস, প্রবণতাসহ নানা কার্যক্রম।

দেশের সরকার প্রধান তথা সরকারের দায়িত্ব হচ্ছে জনগণের অন্ন, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা ও চিকিৎসাসহ সকল মৌলিক চাহিদার সু-ব্যবস্থা করা। বর্তমান চলমান বিশ্ব্যের সাথে সাথে অমাদের দেশেও সরকারের এসব দায়িত্ব সফলভাবে বাস্তবায়নের লক্ষ্যে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তির ব্যাপক ব্যবহার বেড়েছে।

বর্তমান সরকারের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি যথাযথ ব্যাবহারের মাধ্যমে সরকারের প্রতিটি সেক্টরের কাজের গতিশীলতা ও দক্ষতা বেড়েছে অনেক গুনবেশী।

সরকারি কর্মকান্ড সহজ ও স্বচ্ছ করতে, দ্রততার সাথে সিদ্ধান্ত প্রদান এবং অপ্রয়োজনীয় ব্যায় কমাতে যেমন তথ্য প্রযুক্তি প্রয়োজন। তেমনি গ্রামীন মানুষের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছানোর জন্য সরকারের গৃহীত নানামুখী পদক্ষেপের মধ্যে অন্যতম হয়ে উঠেছে ইউনিয়ন তথ্য ও সেবাকেন্দ্র।

সরকারী এক সুত্রে জানাগেছে গত ২০০৭ সালে পাইলট আকারে দেশের ২টি ইউনিয়ন পরিষদে কমিউনিটি ই-সেন্টার (সিইসি) স্থাপন করা হয়।

এরপর এ দু’টি সিইসি’র অভিজ্ঞতার আলোকে ২০০৮ সালে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের একসেস টু ইনফরমেশন (এটুআই) প্রোগ্রামের সহায়তায় স্থানীয় সরকার বিভাগ দেশের ৩০টি ইউনিয়নে সিইসি স্থাপন করে। ২০০৯ সালে ১ হাজার ইউনিয়ন পরিষদে ইউনিয়ন তথ্য ও সেবাকেন্দ্র (ইউআইএসসি) স্থাপিত করা হয়।

এরই ধারাবাহিকতায় ২০১০ সালের ১১ নভেম্বর বর্তমান মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সারা দেশের ৪ হাজার ৫০১টি ইউনিয়ন পরিষদে একটি করে ইউনিয়ন তথ্য ও সেবাকেন্দ্র (ইউআইএসসি) একযোগে উদ্বোধন করেন।

পরবর্তীতে সারাদেশে ৪ হাজার ৫১৬টি (ইউআইএসসি) স্থাপন করা হয়। দেশের সকল ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্র স্থাপনের উদ্দেশ্য হল, ইউনিয়ন পরিষদকে একটি তথ্য ও জ্ঞান-ভিত্তিক প্রতিষ্ঠানে পরিণত করা, যাতে এই সেবা প্রতিষ্ঠান ২০২১ সালের মধ্যে একটি তথ্য ও জ্ঞান-ভিত্তিক দেশ প্রতিষ্ঠায় যথাযথ ভূমিকা রাখতে পারে।

গতকাল সোমবার দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার বেতদিঘী ইউনিয়নের রাধিকাপুর গ্রামের ময়েজ উদ্দিনের স্ত্রী, ছেলের বউ ও ছোট্ট নাতিকে নিয়ে ইউনিয়ন তথ্য ও সেবাকেন্দ্রে যাওয়ার পথে ঐ গ্রামের কৃষক জয়নালের মুখোমুখি হলে উৎফ্ল্লু চিত্তে তিনি বলেন, ইউনিয়ন তথ্য সেবা কেন্দ্রে যাচ্ছি, ছেলে বিদেশ থাকে ইন্টারনেটের মাধ্যমে কম্পিউটারে কথা বলবো সে আমাদের সবাইকে দেখবে, আমরাও ছেলেকে দেখবো।

জয়নাল জানান, সেও তথ্যসেবা কেন্দ্রে যাচ্ছে জমির একটা পর্চা তোলার জন্য একমাস আগে আবেদন করেছিলো। সেটা এসেছে বলে ডিজিটাল কল সেন্টার থেকে মোবাইল করেছিল। সে জন্য তারা সকলে এক সাথে ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্রে যাচ্ছেন।

বেতদিঘী ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্র (ইউআইএসসি)’র উদ্যোক্তা রতন মার্ডী ও খয়েরবাড়ী ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্র (ইউআইএসসি)’র উদ্যোক্তা তরিকুল ইসলাম বলেন, এলাকার মানুষকে গ্রামে বসেই বিভিন্ন ভাবে সেবা দিতে পেরে আমি অত্যন্ত খুশী। ইউনিয়নের মানুষও আমার উপর খুশী। এখানকার সেবার সব রকম কার্যক্রম আমি অব্যাহত রাখবো।

তিনি আরো বলেন, ইউআইএসসি’র সরকারি সেবা সমুহের মধ্যে অন্যতম হচ্ছে জমির পর্চার আবেদন, জন্ম নিবন্ধন, মৃত্যু নিবন্ধন, নাগরিক সনদ, সকল প্রকার নাগরিক আবেদন, পাবলিক পরীক্ষার ফলাফল, অনলাইনে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি, অনলাইনে পাসর্পোর্টের আবেদন, ভিসা ভেরিফিকেশন ও ট্র্যাকিং, অনলাইনে ড্রাইভিং লাইসেন্স এর আবেদন ও নবায়ন, অনলাইন সরকারি টেন্ডার আবেদন, সরকারি ফরম ডাউনলোড, জীবনবীমা, টেলিমেডিসিন, মোবাইলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য পরামর্শ, মোবাইলে কৃষি পরামর্শ, আইনী সহায়তা, বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ, ই-পূর্জি, মাটি পরীক্ষা, আর্সেনিক পরীক্ষা বিভিন্ন সরকারি ডকুমেন্ট প্রণয়নসহ সরকারি বিভিন্ন প্রচারণা কাজে এর গুরুত্ব অনেক।

অন্যদিকে বেসরকারি সেবা সমূহের মধ্যে উল্যেখযোগ্য হচ্ছে, ই-মেইল, ইন্টারনেট ব্রাউজিং, কম্পিউটার প্রশিক্ষণ, মোবাইল ব্যাংকিং ( ডাচ বাংলা, বিকাশ লিমিটেড, মার্কেন্টাইল ব্যাংক, ট্রাস্ট ব্যাংক, ওয়ান ব্যাংক), মোবাইল মেরামত, মোবাইলে টাকা লোড, দেশ-বিদেশে টেলিফোন, ভিডিও কনফারেন্সিং, ছবি তোলা, চাকুরি বিজ্ঞপ্তি দেখা ও অনলাইনে আবেদন, সামাজিক অনুষ্ঠানের ভিডিও রেকর্ডিং ও এডিটিং, সোলার সিস্টেম ম্যানেজম্যান্ট, কম্পোজ ও প্রিন্ট, স্ক্যান, ফটোকপি, ইত্যাদী। একই কথা বলেন বেতদিঘী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান ও উপাধক্ষ্য শাহ্ আব্দুল কুদ্দুষ।

ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুস সালাম চৌধুরী বলেন, গ্রামীণ মানুষের দোরগোড়ায় সেবা পৌঁছানোর লক্ষ্যে সরকার ইউনিয়ন তথ্য ও সেবাকেন্দ্র গঠন করেছেন।

এর মূল উদ্যেশ্য হলো নানামুখী নাগরিক সেবা জনগণ যেন গ্রামে বসেই সহজে পেতে পারেন। সেই লক্ষ্যকে সামনে রেখে ফুলবাড়ী উপজেলা পরিষদসহ মোট ৮টি ইউনিয়ন তথ্য ও সেবা কেন্দ্র (ইউআইএসসি) রয়েছে যা ক্রমেই গ্রামীণ জনগনের সেবা গ্রহণের কেন্দ্র বিন্দুতে পরিণত হয়েছে।

টেকনিটি কম্পিউটার সেলস্ এন্ড ট্রেনিং সেন্টার উদ্বোধন

ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি-দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে টেকনিটি কম্পিউটার সেলস্ এন্ড ট্রেনিং সেন্টার উদ্বোধন করা হয়েছে।

পৌর এলাকার নিমতলামোড় সৌদিয়া মার্কেটে ২য়তলায় টেকনিটি কম্পিউটার সেলস্ এন্ড ট্রেনিং সেন্টার এর শুভ উদ্বোধন করেন, দিনাজপুর জেলা পরিষদ সদস্য আলহাজ্ব কামরুজ্জামান (কামরু)।

টেকনিটি কম্পিউটার সেলস্ এন্ড ট্রেনিং সেন্টার এর ব্যাবস্থাপনা পরিচালক সাবেক সেনা কর্মকর্তা মো: বিপ্লব চৌধুরী এর সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন দিনাজপুর জেলা পরিষদ সদস্য আলহাজ্ব কামরুজ্জামান (কামরু)।

এতে বিষেশ অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা ভাইস চেয়াম্যান মঞ্জুরুল কাদির, প্রভাষক খাইরুল আলম, আলহাজ্ব জয়নাল আবেদীন,ব্যাবসায়ী শাহাদৎ হোসেন।

এ সময় টেকনিটি কম্পিউটার সেলস্ এন্ড ট্রেনিং সেন্টার এর প্রশিক্ষক সুজন হোসেনসহ প্রতিষ্ঠানের সকল কর্মকর্তা ও সুধিজন উপস্থিত ছিলেন। শেষে প্রতিষ্ঠানের উত্তরাত্তর সাফল্য কামনা করে দোয়া অনুষ্ঠিত হয়।

নবাবগঞ্জে আইসিটি দিবস পালিত

নবাবগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি- দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে জাতীয় তথ্য ও যোগাযোগ (আইসিটি) দিবস যথাযথ ভাবে পালিত হয়েছে।

 মঙ্গলবার সকালে দিবসটি পালনে র‌্যালি ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ও তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি অধিদপ্তরের সহযোগীতায় উপজেলা পরিষদ চত্ত্বর থেকে একটি র‌্যালি বের হয়ে উপজেলা সদরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে পুনরায় উপজেলা পরিষদ চত্ত্বরে এসে শেষ হয়।

র‌্যালি শেষে সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী অফিসার আরাফাত হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন নবাবগঞ্জ থানা আ’লীগের সিনিয়র সহ সভাপতি ডাঃ মোশারফ হোসেন ও ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক শাহ মোঃ জিয়াউর রহমান মানিক।

৫৭ ধারা বাতিলের সিদ্ধান্ত

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক-তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনের বিতর্কিত ৫৭ ধারা বাতিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এ ধারার পরিবর্তে ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন করার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করা হয়েছে। আজ বুধবার সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত মন্ত্রিসভা কমিটির এক বৈঠকে এ বিষয়টি চূড়ান্ত করা হয়েছে।

বৈঠক শেষে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক সাংবাদিকদের বলেন, ‘আইসিটি অ্যাক্টের ৫৭ ধারা নিয়ে সাংবাদিকসহ অনেকেরই উদ্বেগ রয়েছে। এ ধারাটি এখন আর সেভাবে থাকছে না। এ ধারাটি ডিজিটাল সিকিউরিটি আইনের সঙ্গে সমন্বয় করা হবে। যাতে বাকস্বাধীনতা খর্ব না হয়।’
৫৭ ধারা বাতিলের বিষয়ে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, ‘৫৭ ধারাসহ আইসিটি অ্যাক্টের কয়েকটি ধারা বিলুপ্ত করা হচ্ছে। আজকের বৈঠকে এ বিষয়টি চূড়ান্ত করা হয়েছে।’
তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আইসিটি অ্যাক্টের ৫৭ ধারা বাতিল হওয়ার পর ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মাধ্যমে ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে।’
বহুল আলোচিত ৫৭ ধারার অপপ্রয়োগের বিরুদ্ধে সাংবাদিকদের একাধিক সংগঠনসহ বিভিন্ন সংগঠন ও সংস্থার প্রতিবাদের মুখে সরকার এ ধারাটি বিলুপ্ত করার উদ্যোগ নেয়। তবে ডিজিটাল সিকিউরিটি আইনের ১৯ ও ২০ ধারার মাধ্যমে ডিজিটাল নিরাপত্তা নিশ্চিত করার উদ্যোগ নেওয়া হয়।

যশোর শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কে চাকরি মেলা অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে

যশোর প্রতিনিধি- বাংলাদেশ হাইটেক পার্ক কর্তৃৃপক্ষ আয়োজনে যশোরে নবনির্মিত শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্কে আগামী ৫ অক্টোবর দিনব্যাপী চাকরি মেলা অনুষ্ঠিত হবে।

শনিবার সকালে প্রেসক্লাব যশোরে এক সংবাদ সংম্মেলনের মাধ্যমে শেখ হাসিনা সফটওয়্যার টেকনোলজি পার্ক প্রকল্প পরিচালক জাহাঙ্গীর আলম সাংবাদিকদের এই তথ্য জানান।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকের উপস্থিতিতে ৫ অক্টোবর সকাল ৯ টায় পার্কে মেলার উদ্বোধন করা হবে।

৫ অক্টোবরের চাকরিমেলায় ঢাকার প্রায় ৪০টি আইটি প্রতিষ্ঠান অংশ নেবে। এ ছাড়া খুলনা বিভাগের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়,কলেজ এবং টেকনিক্যাল কলেজের হাজার হাজার শিক্ষার্থী অংশ গ্রহণ করবে।

জাহাঙ্গীর আলম বলেন, এ পার্কে যে সব সফটওয়্যার নির্মাতা প্রতিষ্ঠান জায়গা পাবে, তাদের কাজের জন্য প্রচুর আইটি প্রফেশনাল প্রয়োজন হবে। এ সব আইটি প্রফেশনালের বেশিরভাগই হবে যশোর অঞ্চলের। এ অঞ্চলের আইটি প্রফেশনালদের সাথে আইটি কোম্পানির সরাসরি সংযোগ করে দেওয়ার উদ্দেশ্যে হাইটেক পার্ক অথোরিটি এ মেলার আয়োজন করেছে।

আগামী দিনের তথ্য প্রযুক্তির কর্মবাজার সম্পর্কে একাধিক সেমিনার এবং চাকরি প্রার্থীদের জীবনবৃত্তান্ত তৈরি ও সাক্ষাতকারের প্রস্তুতি বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত হবে।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনের বিতর্কিত…

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক-তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনের বিতর্কিত ৫৭ ধারার পক্ষে অবস্থান নেওয়ায় এবং নবম ওয়েজ বোর্ড ঘোষণা না দেয়ায় তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনুর অপসারণ দাবি করেছে বিএফইউজে ও ডিইউজসহ সাংবাদিকরা । এই ন্যায় সংগত আন্দোলনের প্রতি সমর্থন জানিয়েছেন বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ পোর্টাল এসোসিয়েশন (বনপা) ও জাতীয় অনলাইন প্রেসক্লাবের নেতৃবৃন্দ।

বনপা’র কেন্দ্রীয় সভাপতি শামসুল আলম স্বপন ও সাধারন সম্পাদক ইঞ্জি. রোকমুনুর জামান রনি এবং জাতীয় অনলাইন প্রেসক্লাবের আহ্বায়ক অধ্যাপক আকতার চৌধুরী যৌথ বিবৃতিতে উল্লেখ করেন, মিডিয়া বান্ধব সরকারের তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু কালো আইন ৫৭ ধারা রাখার পক্ষে জোরালো ভুমিকা রাখায় সাংবাদিকদের শত্রুতে পরিনত হয়েছে।

নেতৃবৃন্দ আরো বলেন, যেখানে প্রধানমন্ত্রী ৫৭ ধারা বাতিলের পক্ষে ইতিবাচক মনোভাব ব্যক্ত করেছেন সেখানে তথ্যমন্ত্রী সুকৌশলে সরকারের সাথে সাংবাদিকদের দুরুত্ব সৃষ্টি করার জন্য ষড়যন্ত্রে লিপ্ত ।

মন্ত্রীপরিষদ সভায় তথ্যমন্ত্রী বলেছেন ৫৭ ধারা নাকি সরকারের রক্ষাকবচ । তার এই বক্তব্যের কঠোর সমালোচনা করে বনপা ও জাতীয় অনলাইন প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ বলেন, ৫৭ ধারা নয়, আল্লাহর রহমত, জনগণ ও সাংবাদিকদের দোয়া-সমর্থনই সরকারের রক্ষা কবচ। অতীতের ঘটনা থেকে শিক্ষা নেয়ার জন্য নেতৃবৃন্দ তথ্যমন্ত্রীকে অনুরোধ জানান।

উভয় সংগঠনের নেতৃবৃন্দ সারা দেশে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) এবং ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) আন্দোলনের সাথে ঐক্যবদ্ধ ভাবে আন্দোলন করার জন্য বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ পোর্টাল এসোসিয়েশন (বনপা) ও জাতীয় অনলাইন প্রেসক্লাবের সকল ইউনিটকে অনুরোধ জানিয়েছেন।

নাটোরে শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টারের প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু

তাপস কুমার, নাটোর-তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি খাতে দক্ষ মানব সম্পদ তৈরীর লক্ষ্যে নাটোরের শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টারে খুব শিঘ্রই প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু হতে যাচ্ছে। পরিত্যক্ত পুরাতন জেলখানা ভবন মেরামত ও আধুনিকায়নের মাধ্যমে ইতোমধ্যে প্রশিক্ষণ প্রদান সুবিধা তৈরী করা হয়েছে।

গণপূর্ত বিভাগ সূত্রে জানা যায়, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের অধীন বাংলাদেশ হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ‘শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টার, নাটোর স্থাপন’ শীর্ষক কর্মসূচীর আওতায় এক কোটি ৮ লক্ষ টাকা ব্যয়ে সীমানা প্রাচীর, অভ্যন্তরীন রাস্তা, বিদ্যুৎ ও স্যানেটারী কাজ সহযোগে পুরাতন জেলখানার তিনটি ভবন মেরামত ও আধুনিকায়ন কাজ সমাপ্ত হয়েছে। এরমধ্যে দুইটি ভবন প্রশিক্ষণ কেন্দ্র এবং অপরটি ক্যান্টিন হিসাবে ব্যবহার করা হবে।

একই আঙিনায় ৫ কোটি ৫ লক্ষ টাকা ব্যয়ে ছয় তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট দ্বিতল ভবনের নির্মান কাজ শুরু হয়েছে। বর্তমানে পাইলিং এর কাজ চলা নতুন নির্মিতব্য এই ভবনের নির্মান কাজ আগামী ডিসেম্বরে শেষ হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী মুহম্মদ মশিউর রহমান আকন্দ।

হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষ সূত্রে জানা গেছে, সারা দেশে সাতটি শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টার নির্মান কর্মসূচী বাস্তবায়ন পরিকল্পনার আওতায় প্রথম শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টার নাটোরে নির্মান করা হচ্ছে।

প্রাথমিকভাবে জেলখানার মেরামত ও আধুনিকায়নকৃত প্রশিক্ষণ ভবনে উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীরা গ্রাফিক্স ডিজাইন, কম্পিউটার হার্ডঅয়ার এন্ড নেটওয়ার্কিং ট্রাবলশ্যুটার, ওয়েব ডিজাইন ডেভেলপমেন্ট, সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন এবং ই-কমার্স ওয়েবসাইট ম্যানেজমেন্ট বিষয়ে দেড় মাসের প্রশিক্ষণ প্রদান করা হবে।

প্রতি ব্যাচে ৩০ জন করে শিক্ষার্থী এবং প্রতিদিন দুই ব্যাচে প্রশিক্ষণ চলবে। এই কেন্দ্রে মোট ৪৮০ জন শিক্ষার্থীর প্রশিক্ষণ গ্রহনের সুযোগ থাকছে।

নতুন ভবন নির্মান কাজ শেষ হলে আগামী জানুয়ারী মাস থেকে ফ্রিল্যান্সাররা ইনকিউবেশন সুবিধা পাবেন। এককভাবে ১৫ জন পুরুষ এবং ১৪ জন মহিলা প্লাগ এন্ড প্লে পদ্ধতিতে ফ্রিল্যান্সিং কাজের জন্যে ইনকিউবেশন সুবিধা পাবেন। এছাড়া প্রতি সেলে পাঁচজন করে মোট ১০ টি প্রাতিষ্ঠানিক ইনকিউবেশন সেলে দলগত ফ্রিল্যান্সিং এর সুযোগ থাকবে।

হাই-টেক পার্ক কর্তৃপক্ষের মেইনটেন্যান্স ইঞ্জিনিয়ার এবং শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং এন্ড ইনকিউবেশন সেন্টার কর্মসূচীর উপ পরিচালক এস এম আল মামুন বলেন, কোর্স কারিকুলাম প্রনয়ন,যাবতীয় উপকরন সংগ্রহসহ সকল সহায়ক কাজের প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। আশা করা হচ্ছে আগামী মাস থেকে প্রশিক্ষণ শুরু হবে।

২৪ ঘণ্টার মধ্যে সিটিসেলকে তরঙ্গ ফিরিয়ে দেওয়ার নির্দেশ

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক-সিটিসেলের বন্ধ হওয়া তরঙ্গ ২৪ ঘণ্টার মধ্যে চালু করতে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশনকে (বিটিআরসি) নির্দেশ দিয়েছেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। পাশাপাশি তরঙ্গ বরাদ্দের লাইসেন্স বাতিল করার সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

সিটিসেলের এক আবেদনের শুনানি করে প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে তিন বিচারকের আপিল বেঞ্চ আজ মঙ্গলবার এই আদেশ দেয়।
বিটিআরসি চেয়ারম্যান শাহজাহান মাহমুদ সিটিসেলের লাইসেন্স বাতিলের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করার কথা জানানোর পরদিন আদালতের এই নির্দেশনা এসেছে।
আদালতে অবমাননার অভিযোগে করা সিটিসেলের আবেদনটি নথিভুক্ত করা হয়েছে। আদালতে সিটিসেলের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন, আইনজীবী রোকনউদ্দিন মাহমুদ ও আহসানুল করিম। বিটিআরসির পক্ষে শুনানিতে ছিলেন, অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম, কামরুল হক সিদ্দিক ও রেজা-ই রাব্বী খন্দকার।

বাজারে তারবিহীন চার্জিং ল্যাপটপ

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক-সম্প্রতি তারবিহীন চার্জিং প্রযুক্তির ল্যাপটপ বাজের উন্মুক্ত করছে প্রযুক্তি নির্মাতা কোম্পানি ডেল। গত বুধবার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে আনুষ্ঠানিকভাবে বাজারে  বিক্রির উদ্দেশ্যে ছাড়ার ঘোষণা দেয় প্রতিষ্ঠানটি। যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে ইতোমধ্যে ল্যাপটপটি পাওয়া যাচ্ছে।

‘ডেল ল্যাটিচিউড ৭২৮৫’ মডেলের ২-ইন-১ ল্যাপটপটিতে রয়েছে তারবিহীন চার্জিং কিবোর্ড এবং চার্জিং ম্যাট। ​কি-বোর্ড এবং ট্যাবলেট উভয়েরই আলাদা ব্যাটারি রয়েছে।
কি-বোর্ডটিই ট্যাবলেটের তারবিহীন চার্জার হিসেবে কাজ করবে। ল্যাপটপটিতে আলাদাভাবে তার যুক্ত চার্জার দিয়ে চার্জ করার কোনো অপশন রাখা হয়নি। ট্যাবলেটটিকে কি-বোর্ডের সঙ্গে যুক্ত করার সঙ্গে সঙ্গেই চার্জিং ম্যাট প্রথমে ট্যাবলেটটিকে এবং এরপর কি-বোর্ডটিকে চার্জ করবে।
 ‘ডেল ল্যাটিটিউড ৭২৮৫’ মডেলের ল্যাপটপটিতে রয়েছে ১২-ইঞ্চি ডিসপ্লে। এর রেজ্যুলেশন 2880 x1920 পিক্সেলে। ইন্টেলের কবি লেক প্রসেসর চালিত ল্যাপটপটিতে রয়েছে ৮ গিগাবাইট/১৬ গিগাবাইট র্যাম, ৫১২ গিগাবাইট স্টোরেজ সুবিধা এবং অতিরিক্ত স্টোরেজের জন্য মাইক্রোএসডি কার্ড যোগ করার সুবিধা। বিক্রয়মূল্য ধরা হয়েছে এক হাজার ১৯৯ ডলার।

লার্নিং অ্যান্ড আর্নিং ডেভেলপমেন্ট প্রকল্পে প্রশিক্ষণ চট্টগ্রাম ও সিলেটে আয় করছে ৫০ ভাগ শিক্ষার্থী

তথ্য-প্রযুক্তি ডেস্ক-দেশজুড়ে চলছে সরকারের লার্নিং অ্যান্ড আর্নিং শীর্ষক প্রকল্পে তথ্যপ্রযুক্তির বিভিন্ন বিষয়ে প্রশিক্ষণ। এ প্রকল্পের উদ্যোগে চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগে মোট প্রশিক্ষণ নিয়েছেন ১ হাজার ৬৬৩ জন। এর মধ্যে ৫০ ভাগ শিক্ষার্থী প্রশিক্ষণ শেষে সফলভাবে ফ্রিল্যান্সিং এর মাধ্যমে আয় শুরু করেছেন।  দুই বিভাগে তারা আন্তর্জাতিক অনলাইন মার্কেটপ্লেস থেকে আয় করেছে ৪৬ হাজার ৭৭০ ডলার বা ৩৭ লাখ ৪১ হাজার ৬০০ টাকা। ফ্রিল্যান্সারদের ব্যক্তিগত এই আয়ের পরিমাণ ক্রমে বাড়ছে ।

আইসিটি বিভাগের সংশ্লিস্ট প্রকল্প সহ এসব তথ্য জানিয়েছে।
জানা গেছে, চট্টগ্রাম জেলায় প্রশিক্ষণ নিয়েছে ৫২০ জন, এর মধ্যে সফলভাবে ৩৭০ জন ফ্রিল্যান্সিং করে আয় করেছেন ২০ হাজার ৪২২ ডলার। বান্দারবানে প্রশিক্ষণ গ্রহণকারী ১২০ জনের মধ্যে ২৬ জন আয় করেছেন ৭৪৯ ডলার। কক্সবাজারে ২৫০ জনের মধ্যে জনের মধ্যে ১০৬ জনের আয় ১ হাজার ২৬১ ডলার। লক্ষ্মীপুরে ১৮০ জনের মধ্যে থেকে ৯৩ জনের আয় ৯৩৬ ডলার। চাঁদপুরে প্রশিক্ষণ পাওয়া ২০০ জনের মধ্যে ১০৮ জনের আয় ১ হাজার ১৭৮ ডলার। কুমিল্লায় ৪৪০ জনের মধ্যে থেকে ২৬৭ জন আয় করেছেন ৪ হাজার ৬২৭ ডলার। ফেনিতে ১৬০ জনের মধ্যে ১৪৭ জনের আয় ১ হাজার ৫৭৩ ডলার। খাগড়াছড়িতে ৮০ জনের মধ্যে ৫৩ জনের আয় ৬৮৩ ডলার। ব্রাহ্মণবাড়িয় ২৮০ জনে মধ্যে ৮৮ জনের আয় ৩ হাজার ৯০ ডলার। রাঙামাটিতে ১২০ জনের মধ্যে ৭৭ জনের আয় ৩ হাজার ৭৮৪ ডলার। নোয়খালীতে ২০০ জনের মধ্যে থেকে ৪৮ জনের আয় এক হাজার ১০ ডলার। সিলেটে ৩০০ জনের মধ্যে ৪ হাজার ৮৩ ডলার আয় করেছেন ১৬৯ জন। সুনামগঞ্জে ২৮০ জনের মধ্যে ১১৯ জন এক হাজার ২১ ডলার আয় করেছেন। হবিগঞ্জে ২০০ জনের মধ্যে ৮৯ জনের আয় ২ হাজার ২৯৯ ডলার। মৌলভীবাজারে ২০০ জনের মধ্যে ৯৪ জন আয় করেছেন ১ হাজার ২১৭ ডলার ।
লার্নিং অ্যান্ড আর্নিং প্রকল্পের চট্টগ্রামের প্রশিক্ষণার্থী আরমান উদ্দিন জানান, নিজেকে স্বাবলম্বী করতে ৫০ দিনের গ্রাফিকস ডিজাইনের ওপর ফ্রিল্যান্সিং কোর্স শেষ করেছি। বিভিন্ন অনলাইনে বিভিন্ন ডিজাইনের কনটেস্টে অংশগ্রহন করে ২ হাজার ৫০০ ডলারের উপর আয় করেছি। এখন ভালো আয় করছি। ওয়েব ডেভেলপমেন্টের উপর প্রশিক্ষণ নিয়ে ২ হাজার ২০০ ডলারের উপর আয় করেছেন বলেন জানান রায়হানা মহিউদ্দিন।
তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের ভারপ্রাপ্ত সচিব সুবীর চৌধুরী বলেন, এ প্রকল্পের মাধ্যমে আমাদের তরুণ প্রজন্মকে তথ্যপ্রযুক্তির বিভিল্পু বিষয়ে দক্ষ করে ফিল্যান্সার হিসেবে গড়ে তুলছি। আন্তর্জাতিক মার্কেটপ্লেসে কাজের উপযুক্ত করে তরুণদের গড়ে তুলতে আমরা প্রশিক্ষণ কার্যক্রম সার্বক্ষণিক মনিটর করছি। এর সুফলও পাচ্ছে শিক্ষার্থীরা।
প্রকল্প পরিচালক মির্জা আলী আশরাফ বলেন, ‘২০১৪ সালে লার্নিং অ্যান্ড আর্নিং প্রকল্পের যাত্রা শুরু হয়। প্রকল্পের মাধ্যমে পাঁচ কোটি ডলার আয়ের লক্ষ্যে সারাদেশের ৬৪টি জেলায় ৬৫০টি ব্যাচে ১৩ হাজার তরুণ-তরুণীকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে।