শনিবার-২৫ জানুয়ারি ২০২০- সময়: রাত ৪:৩৫
গুরুদাসপুরে এক বৃদ্ধা খুন বিরামপুরে সর্বোচ্চ নম্বরপ্রাপ্ত কাটলা হলি চাইল্ড স্কুল বিরামপুরে মুজিব বর্ষ উপলক্ষ্যে দিনব্যাপী অনুষ্ঠান দিদউফ বিরামপু‌রে দুস্থ শীতার্ত‌দের মা‌ঝে শীতবস্ত্র বিতরন বিরামপুরে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস ও জন্মশতবার্ষিকীর ক্ষণ গণনার সূচনা বিরামপুরে ১২ হাজার শিশুকে ভিটামিন এ প্লাস খাওয়ানো হয়েছে দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে সীতার কুটুরি গোচারণ ভূমিতে পরিণত কালো জাম ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে ঐতিহ্যবাহী খেজুর রস, কালের পরিক্রমায় প্রতি বছরই হাজির হয় শীত দিনাজপুর হতদরিদ্র শীতার্থ মানুষের পাশে এগিয়ে এসেছে ডিএফএর

বিরামপুরের শীতকালীন সবজির বাজারে স্বস্তি

এম আই তানিম,বিরামপুর-বিরামপুরের বাজারে শীতকালীন সবজির দাম কমেছে । সপ্তাহ খানেক ধরে প্রচুর শীত থাকলেও গরম ছিল শীতের সবজির বাজার।সরবরাহ বাড়ায় দাম কমতে শুরু করেছে।

ফুলকপি, বাঁধাকপি, পাতা পিঁয়াজ,বেগুন,আলু,মুলা,কাচা মরিচ চড়া দামে হওয়ায় মুখ কালো করেই বাড়ি ফিরতে হয়েছে ক্রেতাদের। তবে শীত যেমন বাড়তে শুরু করেছে, তেমনি কমতে শুরু করেছে শীতের সবজির দামও।সামনের সপ্তাহে আরও কমবে বলে জানিয়েছেন বিক্রেতারা। সাধ্যের মধ্যে সবজি কিনতে পেরে স্বস্তি প্রকাশ করেছেন ক্রেতারাও।

বিরামপুরের সবজি বিক্রেতা সালাম জানান, বাজারে সরবরাহ অব্যাহত থাকলে দাম আরও কমবে। ক্রেতারা বেশি পরিমাণে সবজি কিনছেন। তিনি বলেন, সবজির দাম যদি বৃদ্ধি পায়, তাহলে বিক্রির পরিমাণ কমে যায়। আর যদি সবজির দাম কমে যায় তাহলে বিক্রির পরিমাণ বেড়ে যায় তাতে ক্রেতা ও বিক্রেতা দুজনই লাভবান হন।

মঙ্গলবার বিরামপুরের কাঁচাবাজার ঘুরে দেখা গেছে প্রতি কেজি বাঁধাকপি ও ফুলকপির দাম ১৫-২০ টাকা খুচরা দরে বিক্রি হচ্ছে। নতুন আলুর দাম রাখা হয়েছে ৩০ থেকে ৩৫ টাকা। মুলা পাওয়া যাচ্ছে ১৫ থেকে ২০ টাকা কেজিতে।

বিরামপুরের কাঁচাবাজারগুলো শীতের বিভিন্ন টাটকা সবজি ও শাকে ভরপুর রয়েছে । বাজারে গিয়ে দেখা যায়, প্রতি কেজি শিমের দাম সর্বোচ্চ ২০ টাকা। দুই সপ্তাহ আগেও খুচরা বাজারে শিমের কেজি ছিল ৮০ টাকারও বেশি আর বড় আকারের লাউ পাওয়া যাচ্ছে ২৫ থেকে ৩০ টাকায়।

অনেক মানুষই দুপুরে খাবারের পাতে কোনো না কোনো শাকের তরকারি খেতে ভালোবাসেন। এখনকার সবজির বাজারে শীতকালীন শাকের চাহিদা রয়েছে প্রচুর। সরিষাশাক, মুলাশাক, পেঁয়াজশাক, ধনেপাতা, লালশাক, লাউশাক সহ আরও অনেক রকমের শাক। এক আঁটি পালংশাক বিক্রি হচ্ছে ৫ থেকে ১০ টাকায়।

লালশাকের আঁটিও বিক্রি হচ্ছে ৫ থেকে ১০ টাকায়। শীত আসতেই বাজারে উঠেছে লম্বা লম্বা সবুজ কাঁচামরিচ। প্রতি কেজি কাঁচামরিচ বিক্রি হচ্ছে ৩৫ থেকে ৪৫ টাকায়।

সবজির বাজারে কমতে শুরু দেশি পেঁয়াজের দাম,দেশি পেঁয়াজ এখন বিক্রি হচ্ছে প্রতি কেজি ৮০ টাকা থেকে শুরু সর্বোচ্চ করে ১০০ টাকায় । আর পাতা পিঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৪৫ থেকে ৫৫ টাকায়।

print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *