শনিবার-৮ আগস্ট ২০২০- সময়: বিকাল ৫:৩৬
বিরামপুরে পৌর মেয়র সহ ৭ জন হোম কোয়ারেন্টাইনে বিরামপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী পালিত বিরামপুরে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি আটক বিরামপুরে লাখো কণ্ঠে ৭ মার্চের ভাষন পাঠ গুরুদাসপুরে এক বৃদ্ধা খুন বিরামপুরে সর্বোচ্চ নম্বরপ্রাপ্ত কাটলা হলি চাইল্ড স্কুল বিরামপুরে মুজিব বর্ষ উপলক্ষ্যে দিনব্যাপী অনুষ্ঠান দিদউফ বিরামপু‌রে দুস্থ শীতার্ত‌দের মা‌ঝে শীতবস্ত্র বিতরন বিরামপুরে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস ও জন্মশতবার্ষিকীর ক্ষণ গণনার সূচনা বিরামপুরে ১২ হাজার শিশুকে ভিটামিন এ প্লাস খাওয়ানো হয়েছে

কনকনে শীতের রাতে ঘরে ঘরে গিয়ে শীত বস্ত্র বিতরণ করলেন রাজারহাটের ইউএনও

প্রহলাদ মণ্ডল সৈকত, রাজারহাট-‘এই শীতার্ত মানুষগুলো দরিদ্র-অসহায়, কিন্তু অতিশয় সহজ-সরল। এরা মিথ্যা কথা বলতে জানে না, এরা মানুষকে তেল মারতে জানে না, এরা মিষ্টি মিষ্টি কথা বলতে জানে না, এরা ছলনা করতে জানে না এবং এরা কিছু চাইতেও জানে না। এরা ইউএনও চিনে না, এরা চেয়ারম্যান চিনে না, এরা নেতা চিনে না, এরা সরকারি অফিস চিনে না এবং এরা কিছু চাইতেও জানে না।’

২৩ ডিসেম্বর সোমবার রাতে কম্বল বিতরণ করতে গিয়ে এদের সম্পর্কে এমন কথা বলেন রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাঃ যোবায়ের হোসেন।

তিনি কুড়িগ্রাম জেলার রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়ালডাঙ্গা ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের চর বগুড়াপাড়া, চর মুন্সিপাড়া, চর মন্ডলপাড়া, চর খাঁপাড়া ও চর গতিয়াশাম বস্তিতে এবং এসব এলাকার রাস্তায় রাস্তায় ২০০ জনের মাঝে কম্বল বিতরণ করেন।

সবার ঘরে ঘরে যাওয়ার চেষ্টা করেছেন, ঘরে ঢুকে তাদের বাস্তব অবস্থা দেখেছেন, অনেককে ঘুম থেকেও জাগিয়েছেন। নিজের চোখে এদের করুন অবস্থা দেখেছেন, এদের লেপ নেই, কম্বল নেই, গরম কাপড় নেই, সত্যিই নেই, এরা কাঁথা গায়ে দিয়ে শীতে কাঁপতে কাঁপতে ঘুমায়। অফিসে বসেই হয়ত দিতে পারতেন কিন্তু উপজেলা নির্বাহী অফিসারের চেষ্টা ছিল সরকারি কম্বলগুলো যেন সঠিক মানুষের কাছে পৌঁছাতে পারেন।

এসময় তাঁর সাথে ছিলেন, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান জনাব মোঃ আসিকুল ইসলাম মন্ডল সাবু, প্রেসক্লাব রাজারহাটের সাধারণ সম্পাদক মোঃ রফিকুল ইসলাম এবং ইউএনও অফিসের সিএ মোঃ মিলন পারভেজ।

শীতের রাতে কষ্ট করে এভাবে প্রকৃত অসহায়দের মাঝে শীত বস্ত্র বিতরণ করায় বিভিন্ন মহল থেকে প্রশংসা জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে। তাদের দাবী এ কাজ করলে প্রকৃত ব্যক্তিরাই বয়স্কভাতা, বিধবাভাতা সহ সরকারী সকল সুযোগ সুবিধা পাবেন তারা আশাবাদী।

print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *